জেনারেল সার্জারি


“জেনারেল সার্জারি” হল সার্জারির একটি শাখা এবং সমস্ত চিকিৎসা ও সার্জারি বিভাগের বিস্তারিত এবং বিশেষ প্রশিক্ষণ এখানে অন্তর্ভুক্ত থাকে। সার্জারির কিছু সাধারণ অংশ হল অ্যানাটমি, মেটাবলিজম, নিউট্রিশন, রিসাসিটেশন, ইনটেনসিভ কেয়ার ইত্যাদি। জেনারেল সার্জন হলেন ডায়াগনোসিস, অস্ত্রোপচার-পূর্ব, অস্ত্রোপচার ও অস্ত্রোপচার পরবর্তী ব্যবস্থাপনার একজন বিশেষজ্ঞ যিনি মাথা ও ঘাড়, পেট, রক্ত পরিবহণ তন্ত্র, এন্ডোক্রিন সিস্টেম ইত্যাদি বিভাগের বিস্তৃত পরিসর জুড়ে কাজ করেন।

OUR STORY

Know About Us

Why Manipal?

মনিপাল হসপিটালের জেনারেল সার্জারি বিভাগে আছে অত্যাধুনিক পরিকাঠামো এবং বহু ধরণের সমস্যায় আক্রান্ত হাজার হাজার রোগীর চিকিৎসা দিতে সক্ষম ডিজাইন। আমাদের জেনারেল সার্জনরা আধুনিক, হাই-টেক সরঞ্জাম ব্যবহারে বিশেষভাবে প্রশিক্ষিত এবং নিজেদের ক্রমাগত উন্নত করতে থাকার মাধ্যমে সার্জারির রোগীদের অস্ত্রোপচার-পূর্ব, অস্ত্রোপচার ও অস্ত্রোপচার পরবর্তী ব্যবস্থাপনা সহ আনুষঙ্গিক জটিলতা সামলাতে সর্বাঙ্গীন পরিষেবা প্রদান করেন।

দিল্লীতে জেনারেল সার্জারির অন্যতম সেরা হসপিটাল হল মনিপাল হসপিটাল যেখানে রোগীদের উন্নত প্রযুক্তি ও মিনিমালি ইনভেসিভ পদ্ধতির উপযোগিতা প্রদান করা হয় যা অনেক সময় ফলাফলের সাথে কোন আপস না করে ব্যয় হ্রাস করে। রোগীদের স্বাচ্ছন্দ্য অনুযায়ীই আমরা বেশীরভাগ সময় প্রক্রিয়া বাছাই করি।

Treatment & Procedures

ল্যাপারোস্কোপিক অ্যাপেন্ডিক্টোমি

এই ন্যুনতম কাটা-ছেঁড়া করে সম্পন্ন করা সার্জারির মাধ্যমে শরীর থেকে অ্যাপেন্ডিক্স বের করা হয়। অ্যাপেন্ডিক্স হল বৃহদন্ত্রের কাছে অবস্থিত একটি ছোট থলি যা মানুষের দেহে কোন কাজেই ব্যবহৃত হয় না। তবে, কোনরকম ব্যাথা-যন্ত্রণা হলে বা অন্যান্য উপসর্গ দেখা গেলেই এটি বের করা হয়। পেটে ছোট করে কেটে একটি ল্যাপারোস্কোপের মাধ্যমে অ্যাপেন্ডিক্স বের করা হয়। এই সার্জারি…

Read More

সেবেসিয়াস সিস্ট

সংক্ষিপ বিবরণ: o সেবেসিয়াস সিস্ট হল ছোট, যন্ত্রণাহীন, আস্তে আস্তে বড় হওয়া, ক্যানসার সৃষ্টি না করা স্ফীত অংশ যা ত্বকের নীচে অবস্থান করে। এর মধ্যে তরল বা অর্ধ-তরল পদার্থ থাকে এবং সাধারণত মুখ, গলা বা বুকে-পেটে দেখা যায়। প্রক্রিয়া-পূর্ব ব্যবস্থা: o প্রক্রিয়ার পূর্বে সুনির্দিষ্ট কোন নির্দেশ মেনে চলার নেই। প্রক্রিয়া চলাকালীন ব্যবস্থা: • এই প্রক্রিয়া কেটে…

Read More

স্কিন অ্যাবসিস

সংক্ষিপ বিবরণ: o স্কিন অ্যাবসিস হল পুঁজভর্তি একটি গহ্বর যা ত্বকের উপরিতলে বা তার নীচে তৈরি হতে পারে। এই স্ফীতি সাধারণত পুঁজ অথবা স্বচ্ছ তরলে ভর্তি থাকে। এটি সাধারনত ব্যাকটেরিয়াঘটিত সংক্রমণের কারণে দেখা দেয়, যা দেহের যেকোন স্থানে তৈরি হবে পারে। প্রক্রিয়া-পূর্ব ব্যবস্থা: প্রক্রিয়ার পূর্বে সুনির্দিষ্ট কোন নির্দেশ মেনে চলার নেই। প্রক্রিয়া চলাকালীন ব্যবস্থা:…

Read More

প্যারোনিচিয়া নেল ইনফেকশন

সংক্ষিপ বিবরণ প্যারোনিচিয়া নেল ইনফেকশন হল হাত বা পায়ের নখের ব্যাকটিরিয়া বা ছত্রাকঘটিত সংক্রমণ। নখের ধার বরাবর বা হাত বা পায়ের নখের তলদেশে ত্বকের কাছাকাছি এই সংক্রমণ ঘটে। প্রক্রিয়া-পূর্ব ব্যবস্থা: o প্রক্রিয়ার পূর্বে সুনির্দিষ্ট কোন নির্দেশ মেনে চলার নেই। প্রক্রিয়া চলাকালীন ব্যবস্থা: • এই প্রক্রিয়া কেটে করতে হয় যেখানে সংক্রমণের উপর নির্ভর করে সময় লাগে…

Read More

লিপোমা এক্সাইশন

সংক্ষিপ বিবরণ: o লিপোমা হল একপ্রকার ক্যানসার সৃষ্টি না করা চর্বির স্ফীত অংশ যার সাধারণত কোন উপসর্গ থাকে না বা সমস্যা সৃষ্টি করে না। লিপোমা ত্বকের ঠিক নীচেই থাকে এবং চাপ দিলে সহজে নড়াচড়া করে। সাধারণত ঘাড়, কাঁধ, পিঠ, পেট, হাত ও থাই এলাকায় এগুলি থাকে। লিপোমার জটিলতা তৈরি হলে, এটি বাড়তে থাকবে এবং যন্ত্রণা হবে, তখন অস্ত্রোপচার করে বাদ দেওয়ার দরকার পড়বে।…

Read More

ইনগ্রোন টো নেল

সংক্ষিপ বিবরণ: o পায়ের নখের অন্তর্বৃদ্ধি হয় যখন নখের কিনারা বা প্রান্ত নখ সংলগ্ন ত্বকের মধ্যে বৃদ্ধি পায়। প্রক্রিয়া-পূর্ব ব্যবস্থা: o প্রক্রিয়ার পূর্বে সুনির্দিষ্ট কোন নির্দেশ মেনে চলার নেই। প্রক্রিয়া চলাকালীন ব্যবস্থা: • এই প্রক্রিয়া কেটে করতে হয় যেখানে সময় লাগে প্রায় 10 থেকে 15 মিনিট। চিকিৎসাকারী ডাক্তার এটি সম্পন্ন করেন সাথে সর্বক্ষণ সহায়তার জন্য…

Read More

এফএনএসি প্রক্রিয়া

সংক্ষিপ বিবরণ: o এফএনএসি বা ফাইন নীডল অ্যাস্পিরেশন সাইটোলজি বলতে একটি সরু, ফাঁপা সূচ ব্যবহার করে কোন দেহযন্ত্র বা স্ফীত মাংসপিণ্ডের কলা থেকে কোষ বা তরলের নমুনা বের করে আনা বোঝায়। সাধারণত এটি করা হয় স্তন বা ঘাড়ের কোন গ্রন্থি, যেমন থাইরয়েড গ্রন্থির স্ফীত অংশে থাকা কোষের প্রকার শনাক্ত করার জন্য। ক্যানসার শনাক্ত করার এটি অত্যন্ত কার্যকরী পন্থা। প্রক্রিয়া-পূর্ব…

Read More

.মনিপাল হসপিটালে আমরা সমস্ত এমার্জেন্সি প্রক্রিয়া, ট্রমা কেয়ার ও জেনারেল সার্জারি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করার জন্য সদা প্রস্তুত থাকি। আমাদের এখানে উপলব্ধ করতে পারা পরিষেবাগুলি হল:

Facts and Figures

.

Facilities & Services

মনিপাল হসপিটালে আমরা সমস্ত এমার্জেন্সি প্রক্রিয়া, ট্রমা কেয়ার ও জেনারেল সার্জারি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করার জন্য সদা প্রস্তুত থাকি। আমাদের এখানে উপলব্ধ করতে পারা পরিষেবাগুলি হল:

  • মিনিমালি ইনভেসিভ গ্যাস্ট্রোইন্টেস্টাইনাল সার্জারি: ল্যাপারোস্কোপি বা রোবটিক সহায়তাযুক্ত সার্জারি পদ্ধতি ব্যবহার করে গ্যাস্ট্রোইন্টেস্টাইনাল ট্র্যাক্টের বিভিন্ন সমস্যার চিকিৎসা করা হয় যেমন অ্যাপেন্ডিসাইটিস, গ্যাস্ট্রোইন্টেস্টাইনাল ক্যানসার, ডাইভার্টিকুলার ডিজিজ, গলব্লাডারের অসুখ, গ্যাস্ট্রো-ইসোফ্যাগাল রিফ্লাক্স অসুখ, হার্নিয়া, রেক্টাল প্রোল্যাপ্স, ও অন্ত্রের প্রদাহজনিত অসুখ যেমন ক্রনস ডিজিজ ও অ্যালসারেটিভ কোলাইটিস।
  • মিনিমালি ইনভেসিভ থোরাসিক সার্জারি: ল্যাপারোস্কোপি বা রোবটিক-অ্যাসিস্টেড সার্জারি পদ্ধতি ব্যবহার করে বুকের বিভিন্ন সমস্যার চিকিৎসা করা হয় যেমন খাদ্যনালী ও ফুসফুসের ক্যানসার, নন-ক্যানসারাস চেস্ট ওয়াল টিউমার, গ্যাস্ট্রো-ইসোফ্যাগাল রিফ্লাক্স ডিজিক, প্যারা ইসোফ্যাগাল হার্নিয়া ও আরও অন্যান্য সমস্যা
  • মিনিমালি ইনভেসিভ গাইনিকোলজিকাল সার্জারি: ল্যাপারোস্কোপি, হিস্টেরোস্কোপি ও রোবট সহায়ক সার্জারি পদ্ধতি ব্যবহার করে স্ত্রী জননতন্ত্রের বিভিন্ন সমস্যা যেমন এন্ডোমেট্রোসিস, ওভারিয়ান সিস্ট, ফাইব্রয়েড ও অন্যান্য সমস্যার চিকিৎসা করা হয়।
  • স্টেপলার/ লেজার হিমোরয়েডেক্টমি: অর্শ্ব বা হিমোরয়েড (মলদ্বারের স্ফীত রক্তনালী বা শিরা) বাদ দেওয়া।
  • থাইরয়েডেক্টমি বা থাইরয়েড সার্জারি: উপসর্গযুক্ত সিস্ট, নডিউল, গয়টার, ক্যানসারযুক্ত বর্ধিত কলা ইত্যাদি বাদ দিয়ে থাইরয়েডের সমস্যা নিয়ন্ত্রণ ও চিকিৎসা করা হয়।
  • ল্যাপারোস্কোপিক অ্যাপেন্ডাইসেক্টোমি: সংক্রামিত প্রদাহযুক্ত অ্যাপেন্ডিক্স বাদ দেওয়া
  • ট্রমা সার্জারি: সার্জারির একটি শাখা যেখানে গুরুতর বা প্রাণঘাতী আঘাতের ব্যবস্থা করতে সার্জারি করা হয়।
  • লিপোমা এক্সিশন: ফ্যাট কলা দিয়ে তৈরি ক্যানসারহীন টিউমার, লিপোমা সম্পূর্ণরূপে কেটে বাদ দেওয়া হয়।
  • করোনারি আর্টারি বাইপাস গ্রাফটিং (সিএবিজি): গুরুতর করনারি হার্ট ডিজিজে আক্রান্ত রোগীদের ক্ষেত্রে বদ্ধ করোনারি ধমনী বাইপাস করার জন্য সুস্থ রক্তনালী বা শিরা ব্যবহার করা হয় এবং হার্টে রক্তের প্রবাহ বাড়ানো হয়। বিভিন্ন প্রকারের সিএবিজি হল:                         

                   ট্র্যাডিশনাল করোনারি আর্টারি বাইপাস গ্রাফটিং 

                   - অফ-পাম্প করোনারি আর্টারি বাইপাস গ্রাফটিং

                   -  মিনিমালি ইনভেসিভ ডাইরেক্ট করোনারি আর্টারি বাইপাস গ্রাফটিং

  • ফাইন নীডল অ্যাস্পিরেশন (এফএনএসি) প্রক্রিয়া: একপ্রকার বায়োপ্সি প্রক্রিয়া যেখানে একটি সরু সূচ দিয়ে কলা বা ফ্লুইডের নমুনা সংগ্রহ করে ক্যানসার বা অন্য অসুখের ডায়াগনোসিসে ব্যবহার করা হয়।
  • সিজারিয়ান সেকশন, বা সি-সেকশন বা সিজারিয়ান ডেলিভারি: পেট ও জরায়ু কেটে বাচ্চার ডেলিভারি করা হয়।
  • টনসিলেক্টোমি: টনসিল, যেগুলি হল একজোড়া ডিম্বাকৃতি কলার প্যাড যা গলার পিছনদিকে অবস্থান করে, সংক্রামিত ও প্রদাহযুক্ত হয়ে গেলে কেটে বাদ দেওয়া হয়।
  • স্কিন গ্রাফটিং: দেহের এক অংশ থেকে অন্য অংশের পুড়ে যাওয়া, সংক্রমণ ইত্যাদি কারণে নষ্ট হয়ে যাওয়া ত্বক প্রতিস্থাপন করা হয়।
  • ক্যারটিড এন্ডারটেরেক্টমি: ক্যারোটিড আর্টারির অসুখে আক্রান্ত রোগীকে স্ট্রোকের হাত থেকে রক্ষা করতে ক্যারোটিড ধমনীর বাধা দূর করে মস্তিষ্কে রক্ত প্রবাহ স্বাভাবিক করা হয়।
  • বেরিয়াট্রিক সার্জারি: এই সার্জারির মাধ্যমে ওজন কমানো হয়, যেখানে স্থূলতার চিকিৎসায় পাকস্থলী ও ক্ষুদ্রান্ত্রে পরিবর্তন ঘটানো হয়। বেরিয়াট্রিক সার্জারির প্রকারগুলি হল:

                 

  • অ্যাডজাস্টেবল গ্যাস্ট্রিক ব্যান্ড
  • বিলিওপ্যানক্রিয়াটিক ডাইভার্শন উইথ ডিওডেনাল সুইচ
  • রু-এন-ওয়াই গ্যাস্ট্রিক বাইপাস
  • স্লীভ গ্যাস্ট্রেক্টমি
  • সিঙ্গল অ্যানাস্টোমোসিস ডিওডেনো-ইলিয়াল বাইপাস উইথ স্লীভ গ্যাস্ট্রেক্টমি

  • ল্যাপারোস্কোপিক কোলেসিস্টেক্টমি: মিনিমালি ইনভেসিভ সার্জারির মাধ্যমে রোগগ্রস্ত ব্লাডার বাদ দেওয়া হয়।
  • ল্যাপারোস্কোপিক ইনগুইনাল হার্নিয়া ও আম্বিলিকাল রিপেয়ার: কুঁচকি বা গ্রইন হার্নিয়া সারাতে সেইসঙ্গে আম্বিলিকাল/ ভেন্ট্রাল/ ইনসিজনাল হার্নিয়ায় এই মিনিমালি ইনভেসিভ প্রক্রিয়া ব্যবহৃত হয়।
  • ল্যাপারোস্কোপিক কোলেক্টমি ও স্প্লেনেক্টমি: ল্যাপারোস্কোপিক কোলেক্টমি ও স্প্লেনেক্টমি পদ্ধতি ব্যবয়াহ্র করে রক্তপাতযুক্ত কোলন ক্যানসারের চিকিৎসা করা হয়। এই প্রক্রিয়ায় ক্ষতিগ্রস্ত কোলন ও প্লীহা বাদ দেওয়া হয়।

 

FAQ's

Typically, you would approach a general surgeon with a diagnosis in hand. The surgeon examines the details of the case and makes a surgical plan based on scans and imaging. Then a date is set for surgery and any preparation or pre-surgical conditions that need to be met, are explained to the patient.

Surgery can be performed through:

  • The traditional open surgery method: A single large incision is made to get a full view of the organ. E.g., open-heart surgery.

  • Minimally invasive or keyhole method: Smaller multiple incisions are made, and specialized tools are inserted through these incisions to perform the surgery. Laparoscopy, endoscopy, arthroscopy, bronchoscopy, etc. are some keyhole surgery techniques.

Open surgery is performed through a single large incision and is currently less commonly performed due to more advanced minimally invasive surgical techniques. However, some surgeries can only be performed using the traditional open surgery and have several benefits including: 

  • A clearer view of the entire organ or tissue to be removed 

  • Placing an implant or a device that requires a larger area

Benefits of a minimally invasive procedure include:

  • Smaller incisions and therefore, minimal scarring, fewer chances of complications, less loss of blood, shortened hospital stay and speedy recovery.

  • The procedure is less traumatic to the patient as well as for the surgeon.

Depending on the type of disease or disorder, preparations for surgery varies. Generally, before the surgery, you will be asked to undergo some blood investigations and imaging tests. You may be asked to stop eating or drinking anything 8 hours before the procedure. In case you are taking blood-thinning medications, you may be advised to stop taking them a week before the procedure. Make sure you have help at home during your recovering period, post-surgery.

Surgery complications depend on the type of surgery and techniques used to perform a surgery. A minimally invasive technique offers a low risk of complications and speedy recovery. Generally, some common complications of any surgery may include:

  • Infection, discharge, or bleeding from the surgical incision site. 

  • Haemorrhage or bleeding from the incision site.

  • Deep vein thrombosis or blood clots in the deeper vein can travel to the heart and clog an artery. 

  • Pulmonary complications like chest pain.

  • Temporary urine retention

  • Reaction to anaesthesia

All surgical procedures carry an inherent amount of risk with them. Some surgical procedures are safer than others, and modern operating rooms are well equipped to deal with even extreme complications. The surgical risk, however, is amplified by certain medical conditions.

Depending on the type of surgery, and the nature of the underlying condition that made the surgery necessary, a surgeon will prescribe a period of time where the patient must be under observation. Minimally invasive surgeries heal quite quickly and do not cause much discomfort, larger incisions, however, can take much longer to heal.

Surgical procedures are generally not recommended by doctors when there is a safer alternative available. However, sometimes surgery is necessary because it is the most effective treatment available.

Appointment
Health Check
Home Care
Contact Us
Write to COO
Review Us
Call Us